টিকটক নিষিদ্ধ করলো ভারত

128

গো’পনীয়তা ও সুরক্ষা নীতিমালা না মানায় ভা’রত সরকার দেশটিতে অন্তত ৫৯টি চীনা অ্যাপস নিষিদ্ধ করেছে। এসব অ্যাপসের মধ্যে রয়েছে জনপ্রিয় ভিডিও তৈরির অ্যাপ টিকট’ক, উইচ্যাট, হ্যালো, শেয়ারইট, ইউসি ব্রাইজার, শপিং অ্যাপ ক্লাব ফ্যাক্টরি।

ভা’রতীয় গোয়েন্দা সংস্থা অ্যাপগুলোর বি’রুদ্ধে অ’ভিযোগ জানিয়েছিল যে, এগুলো ব্যবহারের শর্ত লঙ্ঘন করছে, ব্যবহারকারীর গো’পনীয়তার সাথে আপোস করছে এবং স্পাইওয়্যার বা ম্যালওয়্যার হিসেবে ব্যবহৃত হচ্ছে। যার পরেই সরকার অ্যাপগুলো নিষিদ্ধ কারার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। ইতোমধ্যে ব্যবস্থা হিসেবে অ্যাপগুলো দেশটিতে ব্লক করা হয়েছে বলে ভা’রতীয় সংবাদ মাধ্যম এনডিটিভি জানিয়েছে।

এদিকে ইকোনোমিক টাইমসে সরকারের দেয়া এক বিবৃতি উদ্ধৃত করে বলছে, তথ্যপ্রযু’ক্তি আইনের ৬৯এ ধারায় সরকার অ্যাপসগুলোকে নিষিদ্ধ করেছে। ২০০৯ সালের বিধিমালা অনুযায়ী সরকার তার ক্ষমতা প্রয়োগ করেছে।

সরকারের একটি সূত্র জানিয়েছে, মূলত অ্যাপগুলো দীর্ঘদিন থেকেই দেশের সুরক্ষা ও গো’পনীয়তার নীতিমালা ভঙ্গ করে আসছিল। এর ফলে দেশের বিভিন্ন তথ্য পাচার হবার আশ’ঙ্কা ছিল। যে কারণে দেরিতে হলেও ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। যেসব অ্যাপ নিষিদ্ধ করা হয়েছে সেগুলোর মধ্যে অ’ত্যধিক জনপ্রিয় টিকট’ক, ইউসি ব্রাউজার।

এছাড়াও রয়েছে লাইকি, ক্ল্যাশ অব কিং, ভাই’রাস ক্লিনার, উইবো, উইচ্যাট, ভিগো লাইভ, সেলফি সিটি, ক্যাম স্ক্যানারসহ আরও অনেক।

এদিকে, সম্প্রতি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম অ্যাপ টিকটকের ওপর নিষেধাজ্ঞার দাবি উঠেছে বাংলাদেশে। নতুন প্রজন্মকে ইন্টারনেটের আপত্তিকর আসক্তি থেকে বের করে আনতে ইতোমধ্যে অশ্লীল কনটেন্ট, জুয়া বা বিপথগামী সাইট বন্ধে করে দিচ্ছে বাংলাদেশ সরকার। সংশ্লিষ্টরা বলছেন, এ ধরনের সাইড দেশীয় সংস্কৃতির জন্য হুমকিস্বরূপ। বিভিন্ন সিনেমার জনপ্রিয় গানের একাংশ, ঠোঁট মিলিয়ে ভিডিওতে কোনো খাবার উক্তি তৈরির এই অ্যাপ নিয়ে ইতিমধ্যে বেশ কয়েকটি দেশে সমালোচনা ঝড় উঠেছে। অ্যাপের কারণে আমাদের নতুন প্রজন্মের বেড়ে উঠা হুমকির মুখে পড়েছে। সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাপের কারণে দ্রুত ছড়িয়ে পড়ছে অশ্লীল কন্টেন্ট ও ব্যঙ্গাত্মক ভিডিও। এর ফলে মানুষের মধ্যে একধরনের অসুস্থ মানসিকতা তৈরি হয়। তারা স্বাভাবিক কথাকেও ব্যঙ্গ করে বলে। এছাড়া এসব একসময় বদভ্যাসে পরিণত হয়।

আমাদের দেশেও বিভিন্ন জায়গায় বিভিন্ন মানুষকে আবুল, মফিজ, রোহিঙ্গা– ইত্যাদি বলে ঘরে-বাইরে ঠাট্টা-বিদ্রুপ, ব্যঙ্গ, অশ্লীল রঙ্গ-তামাশা করার শেষ যেন নেই।

উল্লেখ্য, ভা’রতের লাদাখ সীমান্তে গত ১৫ জুন ভা’র-চীন সে’নাদের মধ্যে সং’ঘর্ষে ভা’রতের ২০ সে’না নি’হত ও শতাধিক সে’না আ’হত হয়। এরপর পুরো ভা’রতজুড়ে চীনা পণ্য বর্জনের ডাক দেয় বিভিন্ন মহল। এমন এক সময়েই ভা’রত সরকার চীনা এসব অ্যাপ নিষিদ্ধ করলো।

(Visited 28 times, 1 visits today)

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here